তথ্যপ্রযুক্তি: নবীন উদ্যোক্তাকে সম্মাননা দেবে সরকার

তথ্যপ্রযুক্তি খাতের নবীন উদ্যোক্তাদের সম্মাননা দেবে সরকার। মঙ্গলবার তথ্য যোগাযোগ প্রযুক্তি (আইসিটি) বিভাগের এক সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, দেশি সেরা, মহিলা ও আঞ্চলিক বিভাগে সর্বমোট দশটি উদ্যোগকে সম্মাননা জানানোর পাশাপাশি দেশিয় ও আন্তর্জাতিক বিনিয়োগকারীদের পরিচয় করিয়ে দিতে আগামী ২৫ মে অনুষ্ঠিত হবে ‘ন্যাশনাল ডেমো ডে’, যেখানে উদ্যোক্তা ও বিনিয়োগকারীরা পারস্পরিক সম্পর্ক উন্নয়নের সুযোগ পাবেন।

রাজধানীর কারওয়ান বাজারস্থ সফটওয়ার টেকনোলজি পার্কে প্রধান অতিথি আইসিটি প্রতিমন্ত্রী জুনায়েদ আহমেদ পলকের উপস্থিতিতে এক সংবাদ সম্মেলনে স্টার্টআপ বাংলাদেশের ন্যাশনাল ডেমো ডে’র বিস্তারিত তুলে ধরেন আয়োজকরা।

আইসিটি বিভাগের উদ্যোক্তা বিশেষায়িত কর্মসূচি স্টার্টআপ বাংলাদেশ ও উদ্যোক্তা গবেষণা প্রতিষ্ঠান বেটার স্টোরিজ লিমিটেডের উদ্যোগে জাতীয় পর্যায়ে প্রথমবারের মতো অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে ন্যাশনাল ডেমো ডে ২০১৭।

এই আয়োজনে সহযোগী হিসেবে আছে জিপি অ্যাকসেলারেটর ও ভেঞ্চার ক্যাপিটাল অ্যান্ড প্রাইভেট ইক্যুইটি অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (ভিসিপিইএবি)।

আয়োজকরা জানান, যেসব উদ্যোক্তা এক বছরের বেশি সময় ধরে তথ্যপ্রযুক্তি খাতে ব্যবসা পরিচালনা করে আসছেন তারা স্টার্টআপ অ্যাওয়ার্ড এ আবেদন করতে পারবেন।

আইসিটি প্রতিমন্ত্রী জুনায়েদ আহমেদ পলক বলেন, বাংলাদেশের উদ্যোক্তাদের জাতীয় ও আন্তর্জাতিক পর্যায়ের বিনিয়োগকারীদের সঙ্গে পরিচিত করে দেওয়ার লক্ষ্যেই অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে ন্যাশনাল ডেমো ডে ও স্টার্টআপ অ্যাওয়ার্ড ২০১৭। আমি মনে করি, স্টার্টআপদের জন্য বাংলাদেশ সবচেয়ে উপযুক্ত স্থান। বর্তমান সরকার স্টার্টআপদের সহযোগিতা করার জন্য অনেক কর্মসূচি নিয়েছে। আমরা বিশ্বাস করি, স্টার্টআপদের উন্নয়নের সঙ্গে দেশের উন্নয়ন জড়িত।

সংবাদ সম্মেলনে আরো উপস্থিত ছিলেন গ্রামীণফোনের সিনিয়র ডিরেক্টর ও হেড অব ট্রান্সফর্মেশন কাজী মাহবুব হাসান, ভিসিপিইএবি’র সভাপতি শামীম আহসান ও সাধারণ সম্পাদক শওকত হোসেন, বেটার স্টোরিজ লিমিটেডের ডিরেক্টর সেলিমা হোসেন এলেন প্রমুখ।

আগামী ১৪ মে তারিখের মধ্যে আবেদনের সময় অবশ্যই উদ্যোক্তাকে ব্যবসায়িক নিবন্ধনের কাগজ, এক বছরের আর্থিক লেনদেনের বিবরণী এবং ব্যবসায়ের বিবরণের অনুলিপি সংযুক্তি হিসেবে দিতে হবে। আবেদন করতে ও বিস্তারিত জানতে যেতে হবে ইন্টারনেটের (sartupbangladesh.gov.bd/ndd) ঠিকানায়।

কাজী মাহবুব হাসান বলেন, গ্রামীণফোন বাংলাদেশে স্টার্টআপ ইকো সিস্টেমকে এগিয়ে নিয়ে যেতে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ। আমরা ন্যাশনাল ডেমো ডে ও বাংলাদেশ স্টার্টআপ অ্যাওয়ার্ডের সঙ্গে থাকতে পেরে আনন্দিত।

শামীম আহসান বলেন, আমরা বাংলাদেশি স্টার্টআপদের জাতীয় ও আন্তর্জাতিক বিনিয়োগকারীদের মধ্যে সংযোগ স্থাপনের জন্য এখনকার মতো সব সময় কাজ করে যাব।

Share

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Facebook Like Box

SuperWebTricks Loading...